“লালপুরে জেলি মিশিয়ে চিংড়ি বিক্রির দায়ে ৪০০০ টাকা জরিমানা”


প্রকাশের সময় : অক্টোবর ১২, ২০২২, ৬:৪২ অপরাহ্ন / ২২০
“লালপুরে জেলি মিশিয়ে চিংড়ি বিক্রির দায়ে ৪০০০ টাকা জরিমানা”
লালপুরে জেলি মিশিয়ে চিংড়ি বিক্রির দায়ে ৪০০০ টাকা জরিমানা
মেহেরুল ইসলাম মোহন লালপুর উপজেলা প্রতিনিধি
নাটোরের লালপুরে জেলি মিশিয়ে চিংড়ি বিক্রির অপরাধে রাশেদ(২৫)নামের এক মাছ ব্যবসায়ীকে ৪ হাজার টাকা জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। এ সময় ৫ কেজি জেলি মিশ্রিত চিংড়ি মাছ জব্দ করে পুড়িয়ে ধ্বংস করা হয়। বুধবার (১২ অক্টোবর ২০২২) সকালে উপজেলার লালপুর বাজারে ভ্রাম্যমাণ অভিযান চালিয়ে এ আদেশ দেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট দেবাশীষ বাসাক।
এ সময় ম্যাজিস্ট্রেট দেবাশীষ বাসাক বলেন,মোবাইল কোর্ট পরিচালনা কালে এক মাছের দোকানে দেহের জন্য ক্ষতিকর অপদ্রব্য জেলি পুশকৃত চিংড়ি বিক্রয় করতে দেখা যায়। মোবাইল কোর্টের অভিযান দলে থাকা উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবু সামা পরীক্ষান্তে নিশ্চিত করেন যে, চিংড়িতে জেলি পুশ করা হয়েছে।পরে তার লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে কর্তব্যরত এক্সিকিউটিভ ম্যাজিস্ট্রেট অভিযোগটি আমলে নিয়ে আসামীর স্বতঃস্ফুর্ত দোষ স্বীকারোক্তির ভিত্তিতে,মানবদেহের জন্য ক্ষতিকর জেলি মিশিয়ে চিংড়ি বিক্রির অপরাধে মাছ বিক্রেতা রাশেদকে মৎস্য ও মৎস্যপণ্য পরিদর্শন ও মাননিয়ন্ত্রণ আইন ২০২০ এর ধারায় ৪,০০০(চার হাজার) টাকা অর্থদণ্ড প্রদান করেন।
তিনি আরো বলেন,জেলি পুশকৃত চিংড়ি,যার ওজন ৫ কেজি এবং আনুমানিক মূল্য ৫,০০০(পাঁচ হাজার) টাকা, জব্দ করে বিধি মোতাবেক বিনষ্ট করা হয়। এ সময় লালপুর উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবু সামা ও লালপুর থানার পুলিশ উপস্থিত ছিলেন।
উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা আবু সামা বলেন,ইলিশের প্রধান প্রজনন মৌসুম ৭ থেকে ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত মোট ২২ দিন ইলিশ মাছ আহরণ,মজুদ, বাজার জাত করণ,ক্রয়-বিক্রয় ও বিনিময় নিষিদ্ধ নিশ্চিত করণার্থে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে।