“বাঁশখালীতে উপজেলা আ.লীগের সম্মেলন দেখে মনে হচ্ছে ইউনিয়ন সম্মেলন: হুইপ স্বপন”


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ৭, ২০২২, ৫:১৯ অপরাহ্ন / ৪৭৭
“বাঁশখালীতে উপজেলা আ.লীগের সম্মেলন দেখে মনে হচ্ছে ইউনিয়ন সম্মেলন: হুইপ স্বপন”
“বাঁশখালীতে উপজেলা আ.লীগের সম্মেলন দেখে মনে হচ্ছে ইউনিয়ন সম্মেলন: হুইপ স্বপন”
আলমগীর ইসলামাবাদী চট্টগ্রাম মহানগর প্রতিনিধি –
দীর্ঘ ২৭ বছর পর অনুষ্ঠিত হয়েছে বাঁশখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন। ৬ ডিসেম্বর মঙ্গলবার দুপুরে বাঁশখালী বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে এই সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। কিন্তু এই সম্মেলনের ও অব্যবস্থাপনা দেখে চরম অসন্তোষ হতাশা ও ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি জাতীয় সংসদের হুইপ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন এমপি।
তিনি বলেন আমি এ ধরনের সম্মেলন জীবনও দেখিনি সাধারণত সম্মেলন শুরু হয়, শান্তির প্রতীক পায়রা উড়ানো, জাতীয় সংগীত পাঠ ও জাতীয় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে। কিন্তু বাঁশখালীতে এসে আমার মনে হলো একটি ইউনিয়নের সম্মেলন ও এর চেয়ে বেশি জাঁকজমকপূর্ণ হয়। বক্তব্য প্রদানকালে এক পর্যায়ে স্লোগানকে ঘিরে তিনি বললেন,” এই বানরের দল লাফালাফি বন্ধ কর”। শোক প্রস্তাব করার সময় লাফালাফি করা অপরাধ, দলের দুর্দিনে দলকে যারা টিকিয়ে রেখেছে তাঁদের খোঁজ খবর নিয়ে তাঁদের প্রতি শ্রদ্ধার সম্মান দেখানোর আহ্বান জানিয়ে তিনি আরো বলেন, আমরা এখন টাকাওয়ালা লোক দেখলে পাগল হয়ে যাই। এ সময় তিনি বাঁশখালী উপজেলা আওয়ামী লীগের নানান আলোচনা ও সমালোচনা করে দিকনির্দেশনা মূলক বক্তব্য প্রদান করেন।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন, চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মুসলিম উদ্দিন আহমদ এমপি, সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক মোছলেহ উদ্দিন মনছুর, শ্রম বিষয়ক সম্পাদক খোরশেদ আলম, বাঁশখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি মোস্তাফিজুর রহমান চৌধুরী এমপি, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল গফুর, বাঁশখালী উপজেলা পরিষদ পরিষদের চেয়ারম্যান চৌধুরী মোহাম্মদ গালিব, পৌরসভার মেয়র অ্যাডভোকেট তোফাইল বিন হোসাইন ও চট্টগ্রাম জেলা পরিষদের সদস্য অধ্যাপক নুরুল মোস্তফা সিকদার সংগ্রাম প্রমুখ। অনুষ্ঠানে বক্তারা গেল ১৪ বছরের সরকারের নানাবিধ উন্নয়নের চিত্র তুলে ধরার পাশাপাশি সকল ভেদাভেদ ভুলে আগামী নির্বাচনে মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর উন্নয়নের হাতকে গতিশীল রাখতে  একসাথে কাজ করার আহ্বান জানান।