কুড়িগ্রামে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ৩ দিন ব্যাপী ইজতেমা।        


প্রকাশের সময় : ডিসেম্বর ২৬, ২০২২, ৬:০২ অপরাহ্ন / ৪৯৪
কুড়িগ্রামে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ৩ দিন ব্যাপী ইজতেমা।        
কুড়িগ্রামে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ৩ দিন ব্যাপী ইজতেমা।        
সাইফুর রহমান শামীম, কুড়িগ্রাম-
কুড়িগ্রামে আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ইজতেমা। তিন দিনব্যাপী ইজতেমায় প্রায় দুই লক্ষাধিক মুসল্লির সমাগম ঘটে।রোববার (২৫ ডিসেম্বর) সকাল ৯টায় ধরলা সেতুর পূর্বপাড়ে ফজলুল করীম রহ. জামিয়া ইসলামিয়া মাদরাসা প্রাঙ্গণে মোনাজাতের মধ্য দিয়ে ইজতেমার সমাপ্তি হয়। এ সময় আগত মুসল্লিদের মধ্যে কান্নার রোল পড়ে যায়।তিন দিনের ইজতেমায় প্রধান অতিথি ছিলেন চরমোনাই পীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীমসহ অনেকে।মোনাজাতের আগে চরমোনাই পীর বলেন, জনগণ সব ক্ষমতার উৎস হতে পারে না, আল্লাহ তাআলাই সব ক্ষমতার উৎস। এ বিশ্বাস সকল মুসলিমকেই লালন করতে হবে। নিয়তের পরিশুদ্ধতা না থাকলে ইবাদত কবুল হবে না। এছাড়া তিন দিনব্যাপী বয়ানে ছিলেন কোরআন শিক্ষা বোর্ডের মহাসচিব মাওলানা নুরুল হুদা ফয়েজী, মাওলানা আব্দুল আউয়াল, নও মুসলিম ডা. সিরাজুল ইসলাম সিরাজী, মুফতী রেজাউল করীম আবরার, রংপুর বিভাগীয় মুজাহিদ কমিটির সদর জয়নুল আবেদীন।
“কুড়িগ্রামের উলিপুরে সস্তায় সবজি- স্বস্তিতে ক্রেতা। 

আবুল কালাম আজাদ, উলিপুর-কুড়িগ্রাম-
কুড়িগ্রামের উলিপুরে উপজেলার পৌরসভাধীন বড় সবজির বাজার সহ অন্যান্য গ্রামীণ বাজার গুলোতে সস্তায় সবজি হওয়ায় স্বস্তিতে ক্রেতারা। সরেজমিন উপজেলার পৌরসভাধীন বড় সবজির বাজার ও গ্রামীণ বাজার গুলোতে  গিয়ে দেখা যায়, সবজির আমদানি অনেক বেশি হওয়ায় সস্তায় সবজি বিক্রি হচ্ছে। তাতে করে ক্রেতারা স্বস্তিতে নিঃস্বাশ ছাড়ছেন। বাজার গুলোতে বিভিন্ন ধরনের সবজি দেখা যায়। ক্রেতারাও স্বতঃস্ফূর্ত ভাবে ক্রয় করছেন। ক্রেতারা বলেন এখন সস্তায় সবজি কিনতে পেরে অনেক খুশি। বিক্রেতারও অনেক বেশি কেনা-বেচা করতে পেয়ে খুশি। সস্তায় সবজি হওয়ায় এখন বাজারে অনেক ক্রেতা দেখা যায় বলে জানান তারা। বাজার গুলোতে পাইকেরিতে ও খুচরায় বিক্রি করেন  রানু মিয়া জানান,কেজিতে বেগুন ১০ টাকা খুচরায় ১৫ টাকা, আলু ২২ টাকা খুচরায় ২৫ টাকা, ফুলকপি ১২ টাকা খুচরায় ১৫ টাকা, সিম ৩২ টাকা খুচরায় ৪০ টাকা, শশা ৩৬ খুচরায় ৪০ টাকা, গাজর ৩০ খুচরায় ৪০ টাকা, টমেটো ৩৫ খুচরায় ৪০ টাকা, রসুন ৬২ খুচরা মাই ৭০ টাকা, পিয়াজ ৩২ খুচরায় ৪০ টাকা, মরিচ ৩২ খুচরায় ৪০ টাকা, পাতা কিপি পিচ প্রতি ৮ টাকা খুচরায় ১০ টাকা, আদা ৯০ খুচরায় ১’শ টাকা, লেবু পিচ প্রতি ৩ টাকা খুচরায় ৪ টাকা, করলা ৫২ খুচরায় ৬০ টাকা, লাউ পিচ প্রতি ২৫ খুচরায় ৩০ টাকা, ব্রয়লার ডিম বিক্রেতা আজিজুল ইসলাম জানান, পিচ প্রতি ৮ টাকা খুচরায় ৯টাকা, চাল বিক্রেতা রতন জানান, স্বর্না কেজিতে ৪০ খুচরায় ৪২ টাকা, আটাশ কেজিতে ৫৫ খুচরায় ৫৬ টাকা, মিনিকেট কেজিতে ৬০ খুচরায় ৬২ টাকা। তিনি আরও জানান আগের চেয়ে বর্তমান চালের বাজার একটু কমেছে।
সবজি ক্রতা লিপি রানী, অর্ছনা রানী ও সুমি বেগম জানান, বর্তমান সবজির অনেক আমদানি হওয়ায় বাজার হাতের লাগালে রয়েছে। তাই সবজি ক্রয় করে স্বস্তি প্রকাশ করেন। তারা আরও বলেন সারা বছর এভাবে সবজির বাজার থাকলে আমাদের মত গরিব মানুষ দু’মুটো ভাত খেয়ে বেঁচে থাকতে পারত। উপজেলার পৌরসভাধীন বড় সবজির বাজারের আড়দের মালিক আব্দুর রশিদ জানান, বর্তমান সবজি আমদানি হওয়ায় দাম অনেক কমেছে। সবজির বাজার দাম কম হওয়ায়  বর্তমান সকল শ্রেনী পেশার মানুষ সবজি কিনতে পারছেন বলে জানান তিনি।”
কুড়িগ্রাম পুলিশের হাতে  গাঁজা মোটরসাইকেল   সহ  ২  মাদক ব্যাবসায়ী আটক।
সাইফুর রহমান শামীম, কুড়িগ্রাম-
নাগরিকদের জানমাল, আইনী প্রতিকার, অপরাধ দমন ও নিবারন সহ বহুমাত্রিক কাজে নানাবিধ উপায়ে আইনের আলোকে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ পুলিশ।
এরই ধারাবাহিকতায় কুড়িগ্রামের চিলমারী থানা পুলিশ  রবিবার (২৫ ডিসেম্বর)   চিলমারী উপজেলার  রমনা ইউনিয়নের  খর খরিয়া জামের তল এলাকা থেকে  ৩ কেজি গাঁজা ও মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত ০১  টি মোটরসাইকেল সহ ০২ জন কুখ্যাত  মাদক ব্যাবসায়ীকে আটক করেছে। আটককৃত মাদক ব্যবসায়ী  নাগেশ্বরীর বগুলাটকুটি এলাকার মোঃ মমিনুল ইসলাম ওরফে মমিনুল(২১) ও ফুলবাড়ীর অনন্তপুর এলাকার মোঃ হামিদুল ইসলাম (২২) । কুড়িগ্রাম জেলা পুলিশের মিডিয়া মুখপাত্র অতিরিক্ত পুলিশ সুপার  মোঃ রুহুল আমীন বলেন,  কুড়িগ্রাম জেলায় মাদক নির্মূলে আমাদের এই অভিযান নিয়মিতভাবে অব্যাহত থাকবে, আমরা সকলের সম্মিলিত সহযোগিতা প্রত্যাশা করি।